সোমবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০ ৬ আশ্বিন ১৪২৭ ● ২ সফল ১৪৪২
শিরোনাম: ● ডিএসইতে আজ মোট লেনদেনের পরিমাণ ৯৭৭ কোটি ৫৮ লক্ষ ৭৭ হাজার ৭১০ টাকা।        ● জাতির জনকের প্রতিকৃতিতে বেসিক ব্যাংকের চেয়ারম্যানের শ্রদ্ধা নিবেদন       ● মিউচুয়াল ট্রাস্ট ব্যাংক এবং ইউনাইটেড প্রোপার্টি সল্যুশন লিমিটেড -এর মধ্যে সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর        ● আল-আরাফাহ্ ইসলামিক ইন্টারন্যাশনাল স্কুল এন্ড কলেজ ও আল-আরাফাহ্ তাহ্ফিজুল কুরআন মাদ্রাসা ভবন উদ্বোধন       ● ইমরান খানের বিরুদ্ধে আন্দোলনে নামছে সবকটি প্রধান বিরোধী দল       ● পশ্চিমাবিশ্বের মতো বাংলাদেশেও কোভিড-১৯ সংক্রমণের দ্বিতীয় ঢেউ লাগার আশঙ্কা       ● সড়ক দুর্ঘটনায় পিআইবি পরিচালক (প্রশাসন) ও যুগ্মসচিব মারা গেছেন       
ব্যাংকিং দুরবস্থা ১৫৯৬ কোটি টাকার হদিস নেই: আদালতকে সাবেক ডেপুটি গভর্নর
নিজস্ব প্রতিবেদক, ৭১ সংবাদ ডট কম :
প্রকাশ: মঙ্গলবার, ২৫ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ১:১৯ পিএম আপডেট: ২৫.০২.২০২০ ৪:৫০ পিএম | অনলাইন সংস্করণ  Count : 77

ব্যাংকিং দুরবস্থা ১৫৯৬ কোটি টাকার হদিস নেই: আদালতকে সাবেক ডেপুটি গভর্নর

ব্যাংকিং দুরবস্থা ১৫৯৬ কোটি টাকার হদিস নেই: আদালতকে সাবেক ডেপুটি গভর্নর

বাংলাদেশের নন-ব্যাংকিং আর্থিক প্রতিষ্ঠানের দুরবস্থা নিয়ে অভিমত দিয়েছেন বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক ডেপুটি গভর্নর খোন্দকার ইব্রাহিম খালেদ। পি কে হালদারসহ কয়েকজন ব্যক্তি ইন্টারন্যাশনাল লিজিং থেকে প্রায় ১ হাজার ৫৯৬ কোটি টাকা তুলে নিয়েছে। এই টাকা কোথায় গেছে তার হদিস পাওয়া যাচ্ছে না। 

এর আগে পিপলস লিজিংকে অবসায়ন করা হয়েছে। এখন যদি ইন্টারন্যাশনাল লিজিংকেও অবসায়ন করা হয় তাহলে এ সেক্টরে বিরুপ প্রভাব পড়বে।একই বিষয়ে বাংলাদেশ ব্যাংকের অবস্থান তুলে ধরেন বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক শাহ আলম।

মঙ্গলবার (২৫ ফেব্রুয়ারি) সকালে প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেনের নেতৃত্বাধীন আপিল বেঞ্চে হাজির হয়ে তারা লিখিত আকারে এ মত তুলে ধরেন।

খোন্দকার ইব্রাহিম খালেদ তার অভিমতে বলেছেন, আমানতকারীরা টাকা পাবেন। তাদের টাকা দেয়া সম্ভব হচ্ছে না। 

তিনি বলেন, ‘আমি মাত্র দায়িত্ব নিয়েছি। এখান থেকে ইনটারন্যাশনালকে বাঁচিয়ে রাখা যাবে কি না তা এখন বলা সম্ভব হচ্ছে না।’

বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক শাহ আলম বলেন, ‘ইন্টারন্যাশনাল লিজিংয়ের অনিময়মের বিষয় যখন জানতে পেরেছি তখনই দুদক ও গোয়েন্দা সংস্থাকে ব্যবস্থা নিতে বলেছি। আর বাংলাদেশ ব্যাংকের আর্থিক গোয়েন্দা ইউনিট এ বিষয়ে একটা প্রতিবেদন দিয়েছে। পুরো প্রতিবেদন এখনো দেয়নি।'

তিনি বলেন, ‘খোন্দকার ইব্রাহিম খালেদকে চেয়ারম্যান নিয়োগ দেওয়া হয়েছে তাকে সুযোগ দেওয়া হলে তিনি ইন্টারন্যাশনাল লিজিংকে পুনর্গঠন করতে পারবেন।’

আদালতে ইন্টারনাশনাল লিজিংয়ের পরিচালকদের পক্ষে শুনানি করেন অ্যাডভোকেট আহসানুল করিম। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম।

আদালত শুনানি শেষে ইন্টারন্যাশনাল লিজিং অবসায়ন করা হবে কি না- সে বিষয়ে আদেশের জন্য আগামীকাল (২৬ ফেব্রুয়ারি) দিন ধার্য করেন।

এর আগে গত ১৬ ফেব্রুয়ারি ইন্টারন্যাশনাল লিজিং অ্যান্ড ফাইন্যান্স সার্ভিসেস লিমিটেডের (আইএলএফএসএল) স্বাধীন চেয়ারম্যান (হাইকোর্টের নির্দেশে নিয়োগপ্রাপ্ত) খোন্দকার ইব্রাহিম খালেদ এবং বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালকের নিচে নয় এমন একজন কর্মকর্তাকে আসতে বলেন আপিল বিভাগ। ইন্টারন্যাশনাল লিজিংয়ের ব্যাস্তবিক পক্ষে অর্থনৈতিক অবস্থা কী রকম আছে, অবসায়ন হওয়ার মতো অবস্থায় আছে কি না, আর্থিক অনিয়ম হলে কোন পর্যায়ে আছে, অর্থনৈতিক অবস্থার বিষয়ে সামগ্রিক অবস্থা নিয়ে তাদের ব্যাখ্যা দিতে বলা হয়।

এর আগে গত ১৯ জানুয়ারি ওই কোম্পানির আমানতকারীদের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে হাইকোর্ট এক আদেশে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত আর্থিক খাতের কোম্পানি ইন্টারন্যাশনাল লিজিং অ্যান্ড ফাইন্যান্স সার্ভিসেস লিমিটেড পরিচালনার জন্য স্বাধীন পরিচালক ও চেয়ারম্যান হিসেবে বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক ডেপুটি গভর্নর খোন্দকার ইব্রাহিম খালেদকে নিয়োগ দেন। 

একইসঙ্গে প্রতিষ্ঠানটির বর্তমান চেয়ারম্যান, এমডি, বহুল আলোচিত প্রশান্ত কুমার হালদারসহ (পি কে হালদার) ১৩ পরিচালকের ব্যাংক হিসাব ও পাসপোর্ট জব্দ করতে বলা হয়। এছাড়া, প্রশান্ত কুমার হালদারের মা, স্ত্রী, ভাই প্রীতিশ কুমার হালদার, দুই কাজিন অমিতাভ অধিকারী ও অভিজিৎ অধিকারী, ব্যাংক এশিয়ার সাবেক ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) এরফানউদ্দিন আহমেদ এবং বন্ধু উজ্জল কুমার নন্দীর ব্যাংক হিসাব ও পাসপোর্ট জব্দ করার নির্দেশ দেয়া হয়। পাশাপাশি ২০ জনের দেশত্যাগের ওপর নিষেধাজ্ঞা দেন আদালত।

একইসঙ্গে, এই ২০ জনের সম্পদের হিসাব ১৫ দিনের মধ্যে আদালতে দাখিলের নির্দেশ দেয়া হয়েছে। পাশাপাশি পিকে হালদারকে দেয়া ঋণ-সংক্রান্ত যাবতীয় কাগজপত্র আগামী ১৫ দিনের মধ্যে আদালতে দাখিল করতে সংশ্লিষ্টদের বলা হয়েছে।

প্রশান্ত কুমার হালদার বিভিন্ন আর্থিক প্রতিষ্ঠানের দায়িত্বে থেকে অন্তত সাড়ে ৩ হাজার ৬০০ কোটি টাকা লোপাট করেছেন বলে অভিযোগ রয়েছে।                                        
                                                                                               

ব্যাংকিং দুরবস্থা ১৫৯৬ কোটি টাকার হদিস নেই: আদালতকে সাবেক ডেপুটি গভর্নর

ব্যাংকিং দুরবস্থা ১৫৯৬ কোটি টাকার হদিস নেই: আদালতকে সাবেক ডেপুটি গভর্নর

বিভিন্ন ব্যাংক থেকে অন্তত ১ হাজার কোটি টাকা নিয়ে কানাডায় পাড়ি জমিয়েছেন মিশম্যাক গ্রুপের মালিক মিজানুর রহমান শাহীন ও স্ত্রী কামরুন নাহার সাখী। শাহীনের দুই ভাই মুজিবুর রহমান মিলন ও হুমায়ুন কবিরও কয়েকশ কোটি টাকা নিয়ে সিঙ্গাপুরে পাড়ি জমিয়েছেন। 

গণমাধ্যমের খবর, সম্প্রতি সময়ে ব্যাংকের ঋণ খেলাপিদের তালিকা বাড়ছে। তার অনেকেই বিদেশে পাড়ি জমিয়েছেন। হাজার হাজার কোটি টাকা মেরে তারা এখন লাপাত্তা। যুক্তরাষ্ট্র, মালয়েশিয়া, দুবাই, কানাডা, অস্ট্রেলিয়াসহ উন্নতি বিভিন্ন দেশে পাড়ি জমিয়েছেন বিনা বাধায়। করছেন রাজকীয় জীবন-যাপন। দেশের টাকা লুট করে বিদেশে পাড়ি জমানোর তালিকায় উঠে এলো শাহীন ও সাখী দম্পতির নাম।

চট্টগ্রামে জাহাজভাঙার আমদানিকারক মিশম্যাক গ্রুপের অনেক এখন বন্ধ। যেগুলো চালু আছে তা কেউ দখলে নিয়ে আর কিছু বিদেশে থেকে শাহীন ও তার ভাই দেখাশোনা করছেন। শীর্ষ ঋণ খেলাপির তালিকায় থাকায় তাদের বিরুদ্ধে কয়েকটি মামলা চলমান। 

শাহীন ও মিলনের ৮টি প্রতিষ্ঠানকে খেলাপি হিসেবে চিহ্নিত করেছে বাংলাদেশ ব্যাংকের ক্রেডিট ইনফরমেশন ব্যুরো-সিআইবি। প্রতিষ্ঠানগুলো হচ্ছে-মিশম্যাক শিপ ব্রেকিং, ফয়জুন শিপ ব্রেকিং, বিআর স্টিল মিলস, মুহিব স্টিল অ্যান্ড শিপ রি-সাইক্লিং, এমআরএম এন্টারপ্রাইজ, এমআর শিপিং লাইনস, আহমেদ মোস্তফা স্টিল ইন্ডাস্ট্রি ও সানমার হোটেলস লিমিটেড। 

তাদের সবচেয়ে বেশি ২৯৮ কোটি ৬৫ লাখ টাকা ঋণ দিয়েছে মার্কেন্টাইল ব্যাংক। এছাড়া অগ্রণী ব্যাংক দিয়েছে ২২৩ কোটি ২০ লাখ, ব্যাংক এশিয়া ১৫১ কোটি ৩৭ লাখ, স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংক ৮৫ কোটি ৫৭ লাখ, ইস্টার্ন ব্যাংক ৪৮ কোটি, প্রিমিয়ার ব্যাংক ৪৭ কোটি ৭ লাখ, ঢাকা ব্যাংক ২৩ কোটি ৪৫ লাখ, শাহ্জালাল ইসলামী ব্যাংক ৭ কোটি ২০ লাখ ও যমুনা ব্যাংক দিয়েছে ৫ কোটি ১১ লাখ টাকা। ঋণের বেশিরভাগই দেয়া হয়েছে বিভিন্ন আমদানি দায়ের বিপরীতে।

কানাডা প্রবাসী বাংলাদেশি ও দুদক কর্মকর্তারা জানান, শাহীন-সাখী দম্পতি এখন কানাডা প্রবাসী। তারা কানাডার টোরন্টতে থাকেন। তার ভাই মিলন আছেন সিঙ্গাপুরে। সেখান থেকে পুরনো জাহাজ কিনে চট্টগ্রামের ব্যবসায়ীদের কাছে বিক্রি করেন এবং দেশের ব্যবসা দেখাশোনা করেন। 

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক দুদক কর্মকর্তারা জানান, চট্টগ্রাম মহানগরীর চকবাজার এলাকার মৃত বজলুর রহমানের ছেলে মিজানুর রহমান শাহীন। তিনি ২০০৯-১০ সালের দিকে ইস্পাত, শিপ ব্রেকিং ও আবাসন ব্যবসার নামে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান গড়ে তোলেন। তারা তিন ভাই মিশম্যাক গ্রুপের মালিক। তারা বিভিন্ন ব্যাংক থেকে বড় অঙ্কের ঋণ নেন। সেটা আদায়ে ব্যর্থ হয়ে ২০১২ সালের পর অর্থঋণ আদালতে মামলা শুরু করে বিভিন্ন ব্যাংক। প্রথম দিকে তারা ঋণগুলো পুনঃতফসিল করে আরও ঋণ নেন। ওইসব টাকা কানাডা, দুবাই ও সিঙ্গাপুরসহ বিভিন্ন দেশে পাচার করে বিদেশে আত্মগোপন করে।

দুদকের একজন পরিচালক বলেন, ‘অর্থ পাচার আইনের বিদেশে অর্থ পাচারের তদন্ত দুদকের তফসিলভুক্ত নয় বরং এটা জাতীয় রাজস্ব বোর্ড ও পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগ করবে। দুদক তফসিলভুক্ত অপরাধের তদন্ত হিসেবে তাদের বিরুদ্ধে বেশকিছু আইনি পদক্ষেপ নিয়েছে।’

তিনি আরও বলেন, ‘সম্প্রতি দুদক চেয়ারম্যান নিজেই বলেছেন যারা অর্থপাচার করে বিদেশে পালিয়ে গেছেন তাদেরকে ইন্টারপোলের মাধ্যমে দেশে ফিরিয়ে এনে আইনের মুখোমুখি করা হবে।’                                                                                                            
 
৭১সংবাদ ডট কম এ প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
আরও খবর


সর্বশেষ সংবাদ
ডিএসইতে আজ মোট লেনদেনের পরিমাণ ৯৭৭ কোটি ৫৮ লক্ষ ৭৭ হাজার ৭১০ টাকা।
জাতির জনকের প্রতিকৃতিতে বেসিক ব্যাংকের চেয়ারম্যানের শ্রদ্ধা নিবেদন
মিউচুয়াল ট্রাস্ট ব্যাংক এবং ইউনাইটেড প্রোপার্টি সল্যুশন লিমিটেড -এর মধ্যে সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর
আল-আরাফাহ্ ইসলামিক ইন্টারন্যাশনাল স্কুল এন্ড কলেজ ও আল-আরাফাহ্ তাহ্ফিজুল কুরআন মাদ্রাসা ভবন উদ্বোধন
ইমরান খানের বিরুদ্ধে আন্দোলনে নামছে সবকটি প্রধান বিরোধী দল
পশ্চিমাবিশ্বের মতো বাংলাদেশেও কোভিড-১৯ সংক্রমণের দ্বিতীয় ঢেউ লাগার আশঙ্কা
সড়ক দুর্ঘটনায় পিআইবি পরিচালক (প্রশাসন) ও যুগ্মসচিব মারা গেছেন
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
এবার ফেঁসে যাচ্ছেন অবৈধ টাকা শিকারী একে এম সাহেদ রেজা, প্রাক্তন চেয়ারম্যান ও বর্তমান পরিচালক, মার্কেন্টাইল ব্যাংক
বগুড়ার শাজাহানপুরে মাস্ক,হ্যান্ডস্যানিটাইজার,সাবান ও করোনা ভাইরাসের সচেতনতামূলক লিফলেট বিতরণ
ফারইস্ট ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি প্রেস বিজ্ঞপ্তি
করোনাভাইরাসে গত ২৪ ঘণ্টায় আরো ৩৬ জনের মৃত্যু, নতুন করে ১৮৯২ করোনা শনাক্ত
অভিনেতা কেএস ফিরোজ ইন্তেকাল করেছেন
মাত্র ৩৫ দিনের এক শিশু করোনাকে জয় করেছে।
বেগম খালেদা জিয়ার ১৩তম কারামুক্তি দিবসে রাজশাহী মহানগর যুবদলের মিলাদ ও দোয়া মাহফিল
Chief Advisor: A K M Mozammel Houqe MP
Minister, Ministry of Liberation War Affairs, Government of the People's Republic Bangladesh.
Editor & Publisher: A H M Tarek Chowdhury
Sub-Editor: S N Yousuf
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ৭১সংবাদ, ২০১৭
প্রধান কার্যালয় : ৫৩, মডার্ন ম্যানশন (১৪তলা), মতিঝিল বাণিজ্যিক এলাকা, ঢাকা-১০০০
বার্তাকক্ষ : +৮৮-০২-৯৫৭৩১৭১, ০১৬৭৭-২১৯৮৮০, ০১৮৫৫-৫২৫৫৩৫
ই-মেইল :[email protected], [email protected], Web : www.71sangbad.com